শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:০৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
নাগেশ্বরীতে সংবাদ টিভির ৫ম তম প্রতিষ্ঠাতা বার্ষিকী উদযাপন ছাত্রলীগের সম্মেলনে আয়োজকদের ওপর ক্ষুব্ধ হয়ে মঞ্চ ছাড়লেন আ. লীগের চার নেতা যশোরে খাবার হোটেলে ঢুকে পড়ল কাভার্ড ভ্যান, পাঁচজনের মৃত্যু সড়ক পরিবহন মালিক ধর্মঘট শুরু, পাবনায় জনদুর্ভোগ চরমে অভিনেত্রী রোশনি ভট্টাচার্যের একই পাত্রকে দ্বিতীয়বার বিয়ে করতে যাচ্ছেন হবিগঞ্জে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ : দুই আসামির ফাঁসির আদেশ পেনাল্টি কিকগুলো আমি হলেও মিস করতাম না : তসলিমা ডিআরইউ নির্বাচনের পরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে একত্রে বগুড়ায় বস্তিবাসীর তথ্যে দুর্ঘটনার কবল থেকে রক্ষা লালমনি এক্সপ্রেস কভিড-১৯ সংক্রমণ প্রতিরোধে টিকার চতুর্থ ডোজ দেওয়ার সুপারিশ

গুরুদাসপুরে ১০ টাকা কেজি চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ

বাংলার প্রতিদিন ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ৪ অক্টোবর, ২০১৬
  • ১১৪ বার পড়া হয়েছে

মো. আখলাকুজ্জামান, গুরুদাসপুর প্রতিনিধি.

নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের ৬ ও ৭ নং ওয়ার্ডের তালিকাভুক্ত ভোক্তাদের মাঝে ১০ টাকা কেজির চাল বিতরণে সংশ্লিষ্ট ডিলারদের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ এনে শতাধিক ভোক্তা ইউএনও অফিস ঘেরাও করে।

মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে নাজিরপুর ইউনিয়নের ওই দুটি ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মুসাব্বের আলী প্রাং ও মসলেম উদ্দিনের নেতৃত্বে তালিকাভুক্ত ভোক্তারা ইউএনও অফিস ঘেরাও করে তার অনুপস্থিতিতে উপজেলা চেয়ারম্যানের স্মরনাপন্ন হন। উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল আজিজ অবশেষে উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. দুলাল উদ্দিন খানকে ওই অনিয়মের বিষয়টি খতিয়ে দেখার অনুরোধ করেন এবং ভোক্তারা যাতে করে তাদের ন্যায্য পাওনা ১০ টাকা কেজি চাল নিয়মিত পান তার ব্যবস্থা করার নির্দেশ দেন। উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক দুলাল উদ্দিন খান তাৎক্ষনিকভাবে অভিযুক্ত ডিলারের কাছে চলে যান।

অভিযোগকারী জনতা কুসুমহাটির সাবেক ওয়ার্ড মেম্বার সামসুল আলম, দেবোত্তর গড়িলার আহম্মাদ আলী, রাণীনগরের রুস্তুম আলী ও বৃ-গড়িলার সাজেদার রহমান জানান, নাজিরপুর ইউনিয়নের সাইফুল ইসলাম, জালাল উদ্দিন, শরিফ উদ্দিন ও মানিক খান সহ ৪ জন ডিলারই সরকারের এ কর্মসূচীকে ব্যাহত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে।

এ ব্যাপারে নাজিরপুর ইউপি চেয়ারম্যান শওকত রানা লাবু জানান, ইউনিয়নের ৪ জন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে সমন্বয়তার কারণেই এ ধরণের অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে।

অপরদিকে উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল আজিজ বর্তমান সরকারের ওই কর্মসূচীকে একটি মহোতী পরিকল্পনার মাধ্যমে গরিব দুস্থ মানুষের পেটের ক্ষুধা মেটানোর প্রশংসা করেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক দুলাল উদ্দিন খান জানান, আমি দুই উপজেলার দায়িত্বে কর্মরত থাকায় সার্বক্ষণিক দেখাশোনা করতে পারছি না। তবে  যতদুর বোঝা যায় বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান শওকত রানা লাবু ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আইয়ুব আলীর মধ্যে সম্পর্কের অবনতি থাকায় ভোক্তাদের এ ধরণের হয়রানী করে চলেছে।
এ ব্যাপারে ইউএনও ইয়াসমিন আক্তারের সাথে কথা বলার চেষ্টা করলে তাঁকে অফিসে পাওয়া যায়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © banglarprotidin.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbanglaro4451