সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১০:০৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
জনপ্রিয় অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী সড়ক দুর্ঘটনার কবলে বিশ্বকাপে জমে উঠল দুর্দান্ত জাপানকে হারিয়ে জার্মানির ‘উপকার’ করল কোস্টারিকা দেশের ব্যাংক খাতের বর্তমান পরিস্থিতি জানানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর নাটোরের লালপুরে ‘ইমো হ্যাকিং চক্রের’ ৭ সদস্য গ্রেপ্তার জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন, শ্রম মন্ত্রণালয় ঘেরাওয়ের ঘোষণা! দুবাই যেতে পারছেন না পোশাক ডিজাইন উরফি! ব্রাজিলের বড় তারকা নেইমারের বিশ্বকাপ শেষ? নড়াইলের ইউপি চেয়ারম্যানের ইয়াবা সেবনের ভিডিও ভাইরাল, সমালোচনার ঝড় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের ঘটনায় একজন গ্রেপ্তার আমি বুলেটপ্রুফ, লোহার পোশাক পরে আছি : ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো

নোয়াখালীর মিনি কক্সবাজারে বেড়াতে গিয়ে কিশোরী গণধর্ষণের শিকার

বাংলার প্রতিদিন ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় সোমবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬
  • ১৭৮ বার পড়া হয়েছে

 

 

 

 

বেড়াতে গিয়ে ১৭ বছর বয়সী এক কিশোরী গণধর্ষণের শিকার হয়েছে—এমন অভিযোগে মামলা হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের ‘মিনি কক্সবাজার’ খ্যাত মুছাপুর ক্লোজার এলাকার সংরক্ষিত বনে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত অভিযোগে পুলিশ দুজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

ওই কিশোরীর বাড়ি ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলায়। পার্শ্ববর্তী গ্রামের পূর্বপরিচিত প্রদীপ শীল নামে এক যুবকের সঙ্গে সে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের মুছাপুর ক্লোজারে বেড়াতে গিয়েছিল।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ ফজলে রাব্বী বলেন, এ ঘটনায় কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে আজ রোববার মামলা করেছেন। মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে, মুছাপুর ক্লোজার এলাকায় বেড়াতে গিয়ে ওই কিশোরী প্রথমে পরিচিত যুবকের দ্বারা এবং পরে কয়েকজন স্থানীয় বখাটে যুবকের দ্বারা ধর্ষণের শিকার হন। এ মামলায় প্রদীপ শীল (২৭) ও মো. নাজমুল হক সোহাগ (২৫) নামের দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ওসি জানান, প্রদীপের বাড়ি ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলায়। তিনি আনসার সদস্য হিসেবে চট্টগ্রাম বন্দরে কর্মরত। আর মো. নাজমুল হক সোহাগ মুছাপুর ক্লোজার এলাকার সংরক্ষিত বনের অস্থায়ী বনপ্রহরী। প্রদীপকে আজ নোয়াখালীর বিচারিক হাকিমের আদালতে পাঠানো হয়েছে। আর নাজমুলকে থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। আগামীকাল সোমবার তাঁকে আদালতে পাঠানো হবে। আর ধর্ষণের শিকার কিশোরীর প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে সম্পন্ন হয়েছে।

ছোট ফেনী নদীর ভাঙন থেকে উপকূলীয় এলাকা রক্ষার পাশাপাশি নতুন ডাকাতিয়া, পুরোনো ডাকাতিয়া-ছোট ফেনী নদীর পানিনিষ্কাশন প্রকল্পের আওতায় ছোট ফেনী নদীতে ২০১৫ সালে প্রায় ১১০০ মিটার দৈর্ঘ্য ‘মুছাপুর ক্লোজার’ (পানিপ্রবাহ বন্ধের বিশেষ ব্যবস্থা) নির্মাণ করা হয়। এটি দর্শনার্থীদের কাছে ‘মিনি কক্সবাজার’ নামে পরিচিত।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © banglarprotidin.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbanglaro4451