রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ১১:২৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::

“সাংবাদিক ও পুলিশের লক্ষ্য একই, দেশ সেবা করা”পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান

বাংলার প্রতিদিন ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় বুধবার, ৮ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭
  • ৭৪ বার পড়া হয়েছে

 

স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহঃ

পুলিশ ও সাংবাদিকদের মধ্যে ভ্রাতৃত্ববোধ জাগ্রত ও সম্পর্ক উন্নয়নে

বুধবার জেলা শহরের অদুরে তামান্না পার্কে এক প্রীতি ভোজের আয়োজন

করা হয়।

ঝিনাইদহ পুলিশ প্রশাসনের উদোগে আয়োজিত এই প্রীতিভোজ

অনুষ্ঠানে সুপার মিজানুর রহমান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কনক কান্তি

দাস, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজবাহার আলী শেখ, জেলা বাস মিনিবাস

মালিক সমিতির সভাপতি রোকনুজ্জামান রানুসহ জেলার বিভিন্ন স্তরের

পুলিশ কর্মকর্তাগন উপস্থিত ছিলেন। ঝিনাইদহ প্রেসক্লাবের সভাপতি

এম রায়হান ও সাধারণ সম্পাদক এড শেখ সেলিমের নেতৃত্বে প্রেসক্লাবের

সদস্যগন তামান্না পার্কের এই অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহন করেন।

পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান আন্তরিকতা ও হৃদ্রতার মধ্য দিয়ে সাংবাদিকদের

স্বাগত জানান। খোলা মেলা আলোচনায় অংশ নিয়ে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান

কনক কান্তি দাস বলেন, সাংবাদিকরা সমাজের দর্পন। অনেক সময় ছোট

ভুলত্রুটিগুলো বড় ভাবে উপস্থাপন করা হয়। তিনি ছোটখাট ভুলগুলো এড়িয়ে

দেশের বৃহৎ স্বার্থে সাংবাদিকদের কাজ করার আহবান জানান।

পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান বলেন, সাংবাদিক ও পুলিশের লক্ষ্য এক, দেশ

সেবা করা। সামাজ, রাষ্ট্র ও সভ্যতা বির্নিমানে পুলিশের পাশাপাশি

সাংবাদিকদের ভুমিকা প্রশংসনীয়। তিনি বলেন, পুলিশ ২৪ ঘন্টার মধ্যে ১৮

ঘন্টাই কাজ করে। ফলে ভুল হতেই পারে। পুলিশ সুপার বলেন, যারা কাজ করেন,

ভুল তাদেরই হয়। তাই অনেক সময় পুলিশ সম্পর্কে ভুল ম্যাসেজ পত্রিকায়

প্রকাশ পায়।

তিনি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কনক কান্দি দাসের বক্তব্যকে সমর্থন করে

বলেন, ছোট ভুলগুলো বড় করে না দেখে সবার লক্ষ্য হওয়া উচিৎ পজিটিভ

বাংলাদেশ গড়া। তিনি বলেন, সাদাকে সাদা আর কালোকে কালো বলতে হবে।

পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান মাদক মুক্ত ঝিনাইদহ গড়তে সাংবাদিকদের

সহায়তা কামনা করেন। সাংবাদিকরা তথ্যমন্ত্রী ও আইজপির বক্তব্য স্মরণ

করিয়ে বলেন, আইজপি বলেছেন, পুলিশ ও সাংবাদিকরা একে অপরের বন্ধু।

তাই তাদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হলে ভুল শুধরিয়ে নিতে হবে। তথ্যমন্ত্রী

হাসানুল হক ইনু বলেছেন, দুর্নীতি প্রতিরোধে সরকারী দপ্তরগুলোতে

সাংবাদিকদের নজরদারী বাড়াতে। দেশের সাংবাদকরা এই কাজগুলোই করে

যাচ্ছেন বলে অনুষ্ঠানে সাংবাদিকরা উল্লেখ করেন। অনুষ্ঠানে সিনিয়র

সাংবাদিক বিমল কুমার সাহা, আমিনুর রহমান টুকু, মিজানুর রহমান,

নিজাম জোয়ারদার বাবলু, এম সাইফুল মাবুদ, আসিফ ইকবাল কাজল, আজাদ

রহমান, মাহমুদ হাসান টিপু, দেলোয়ার কবীর, রফিকুল ইসলাম মন্টুসহ নবীন

প্রবিনরা উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © banglarprotidin.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbanglaro4451