শনিবার, ০৬ জুলাই ২০২৪, ১০:১২ পূর্বাহ্ন

আইভী সহযোগিতা চাইবেন শামীম ওসমানের

বাংলার প্রতিদিন ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় শনিবার, ১৯ নভেম্বর, ২০১৬
  • ১৪০ বার পড়া হয়েছে

 

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের আসন্ন নির্বাচনে আওয়ামী লীগদলীয় সংসদ সদস্য শামীম ওসমান ও মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার হোসেনের সহযোগিতা চাইবেন বর্তমান মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী।

আজ শনিবার শহরের দেওভোগে নিজের নতুন বাসভবনে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন আইভী। তিনি জানান, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার হোসেনের বাসায় গিয়ে তাঁকে পাননি।

মেয়র আইভী আজও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও মনোনয়ন বোর্ডকে  নারায়ণগঞ্জবাসীর পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বলেন, ‘আমাকে মনোনয়ন দেওয়ায় তৃণমূলের নেতাকর্মীদের মাঝে ব্যাপক উল্লাস দেখা গেছে। তৃণমূলে কোনো বিরোধ নেই।’ তিনি উপস্থিত গণমাধ্যমকর্মীদের যাচাই করার জন্য পরামর্শ দেন।

সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, বাংলাদেশে আওয়ামী লীগ একটি বড় দল। সব জায়গায় এর কম বেশি প্রতিযোগিতা আছে বলে তিনি মনে করেন। নারায়ণগঞ্জও এর বাইরে নয়।

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের বর্তমান মেয়র বলেন, ‘আমার নাম এখান থেকে যায়নি কোনো অদৃশ্য বস্তুর কারণে। কিন্তু আমিতো মনোনয়ন বোর্ডে  দরখাস্ত করেছি। এ নিয়ে মনে হয় তৃণমূলের মধ্যে কোনো সমস্যা হবে না।’

সবাই আমার পক্ষে কাজ করবে জানিয়ে আইভী বলেন, ‘নির্বাচন  শুরু হওয়ার আগে দলের মধ্যে বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। কিন্তু দল মনোনয়ন দেওয়ার পর সবাই এক সাথে কাজ করে। মনোনয়ন প্রত্যাশী আনোয়ার কাকা আমার সাথে কাজ করবেন। প্রধানমন্ত্রী কোনো এক ব্যক্তির আশার প্রতিফলন ঘটাননি। উনি নারায়ণগঞ্জবাসীর আশার প্রতিফলন ঘটিয়েছেন। যে যে পক্ষে কাজ করুক না কেন নির্বাচনের স্বার্থে এক হয়ে কাজ করবেন বলে আমি আশা করি। আমি মনে করি আনোয়ার কাকা আমার সাথে কাজ করবেন। আমি তাঁর হাতে নির্বাচনের সব দায়িত্ব তুলে দিতে চাই।’

নির্বাচনে সংসদ সদস্য শামীম ওসমানের ভূমিকা কী হতে পারে জানতে চাইলে সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, ‘ওনার ভূমিকা কী হবে আমি জানি না। আমি মনে করি উনি যদি দলের অনুগত হন তাহলে দলের জন্য কাজ করবেন। আমি শামীম ওসমানের সহযোগিতা চাইব।’

গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে দলটির স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ড নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেলিনা হায়াৎ আইভীকে মেয়র পদে মনোনয়ন দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। নারায়ণগঞ্জ আওয়ামী লীগ থেকে মেয়র পদে দলের মনোনয়নের জন্য যে তিনজনের নাম কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছিল তাতে বর্তমান মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীর নাম ছিল না। তবে জনমত বিবেচনায় নিয়ে আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ড শেষ পর্যন্ত সেলিনা হায়াৎ আইভীকেই মনোনয়ন দিয়েছে। ওই সিটি করপোরেশন নির্বাচনে কে পাচ্ছেন আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বিষয়টি নারায়ণগঞ্জসহ সারা দেশেই গত কদিন আলোচিত ছিল।

নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ভোটগ্রহণ হবে আগামী ২২ ডিসেম্বর। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় আগামী ২৪ নভেম্বর। মনোনয়নপত্র যাচাই ও বাছাই করা হবে আগামী ২৬ ও ২৭ নভেম্বর। নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ সময় আগামী ৪ ডিসেম্বর।

২০১১ সালের ৫ মে নারায়ণগঞ্জ, সিদ্ধিরগঞ্জ ও কদমরসুল এ তিনটি পৌরসভা বিলুপ্ত করে ২৭টি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত হয় নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন। একই বছর ৩০ অক্টোবর প্রথমবারের মতো সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ওই নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী শামীম ওসমানকে পরাজিত করে সিটির প্রথম মেয়র নির্বাচিত হন সেলিনা হায়াৎ আইভী। তিনি বাংলাদেশের প্রথম নারী, যিনি সিটি করপোরেশনের মেয়র হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এর আগে আইভী বিলুপ্ত নারায়ণগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচিত চেয়ারম্যান ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © banglarprotidin.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbanglaro4451