মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৮:৪৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::

চাঁদপুরসহ দেশের অন্তত ৯টি জেলার দেশের শতাধিক গ্রামে কাল ঈদ

বাংলার প্রতিদিন ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় বুধবার, ৬ জুলাই, ২০১৬
  • ২৯২ বার পড়া হয়েছে

ঢাকা: চাঁদপুরসহ দেশের অন্তত ৯টি জেলার শতাধিক গ্রামে আগামীকাল (৬ জুলাই) ঈদ-উল ফিতর উদযাপন করা হবে। সৌদি আরবের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে এসব এলাকার লক্ষাধিক লোক ঈদের নামাজ পড়বেন।

১৯২৮ সাল থেকে চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ উপজেলার সাদ্রা গ্রামে আগাম রোজা-ঈদ উদযাপন করা হচ্ছে। সাদ্রা দরবার শরীফের তৎকালীন পীর মাও. ইসহাক আরব দেশসমূহের সাথে মিল রেখে আগাম রোজা রাখাসহ দুই উৎসব ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা পালনের নিয়ম চালু করেন। দীর্ঘ ৮৮ বছরেও দেশে দু’দিন ঈদ উদযাপনের কোনো সমাধান হয়নি।

শুধু চাঁদপুরই নয়, পাশের নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ভোলা, বরিশাল, পটুয়াখালী, বরগুনা, শরীয়তপুর ও চট্টগ্রাম জেলার কয়েকটি স্থানে মাও. ইসহাক খানের অনুসারীরা একদিন আগেই ঈদ উদযাপন করে আসছেন। পাশাপশি ময়মনসিংহের গৌরীপুরে বাহাদুরপুর সুরেশ্বর দরবার শরীফে কাল ঈদুল ফিতর উদযাপন করা হবে।
হাজীগঞ্জ উপজেলার সাদ্রা গ্রামে ১৯২৮ সাল থেকে একদিন আগে এই প্রথা চালু করা হলেও এখন লক্ষাধিক মানুষ সারা দেশের মানুষের পালনের একদিন আগে রোজা-ঈদ উদযাপন করছেন।

সাদ্রা ছাড়াও জেলার অর্ধশতাধিক গ্রামের একাংশে ওই পীরের অনুসারীরা একদিন আগে ঈদসহ অন্যান্য ধর্মীয় অনুষ্ঠান উদযাপন করেন। গ্রামগুলো হচ্ছে- হাজীগঞ্জ উপজেলার বলাখাল, শ্রীপুর, মনিহার, বরকুল, অলীপুর, বেলচোঁ, রাজারগাঁও, জাকনি, কালচোঁ ও মেনাপুর। ফরিদগঞ্জ উপজেলার শাচনমেঘ, খিলা, উভারামপুর, পাইকপাড়া, বিঘা, উটতলী, বালিথুবা, শোল্লা, রূপসা, গোয়ালভাওর, কড়ইতলী, নয়ারহাট, মোহনপুর ইউনিয়নের পাঁচানী, বাহেরচর পাঁচানী, আইটাদি পাঁচানী, দেওয়ানকান্দি, লতুর্দী, সাতানী ও দক্ষিণ মাথাভাঙ্গার আংশিক, সাদুল্যাপুর ইউনিয়নের আমিয়াপুর গ্রামের একাংশ, ইসলামবাদ ইউনিয়নের মধ্য ইসলামবাদ গ্রামের একাংশ, ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়নের গাজীপুর গ্রামের একাংশ, এখলাছপুর ইউনিয়নের মধ্য এখলাছপুর (বড়ইকান্দি) গ্রামের একাংশ এবং ফরাজীকান্দি ইউনিয়নের ফরাজীকান্দি, রামদাসপুর, চরমাছুয়া, হাজিপুর, দক্ষিণ রামপুর, সরকারপাড়া, ঠাকুরপাড়াসহ কচুয়া ও শাহরাস্তির বেশ কয়েকটি গ্রাম।
লক্ষ্মীপুরের ১০টি গ্রামে ঈদুল ফিতর উদযাপন হতে যাচ্ছে কাল। সকাল ১০টায় রামগঞ্জ উপজেলার নোয়াগাঁও গ্রামের তালিমুন কোরান নুরানী মাদরাসা মাঠে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে। এতে ইমামতি করবেন মাওলানা নেছার আহমদ। এ ছাড়া রামগঞ্জের জয়পুরা, বিঘা, বারো ঘরিয়া, হোটাটিয়া, শারশোই, কাঞ্চনপুর ও রায়পুর উপজেলার কলাকোপা গ্রামসহ মোট ১০টি গ্রামের প্রায় সহস্রাধিক মানুষ কাল ঈদুল ফিতর উদযাপন করবে।
উপজেলার বাহাদুরপুর সুরেশ্বর দরবার শরীফে কাল ঈদুল ফিতর উদযাপন করা হবে। ময়মনসিংহ, ঈশ্বরগঞ্জ, নান্দাইল, ফুলপুর, শম্ভুগঞ্জসহ বিভিন্ন স্থান থেকে দুই শতাধিক ভক্ত জামাতে অংশ নেবেন। সকাল সাড়ে ৯টায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। এতে ইমামতি করবেন হযরত মাওলানা মো. জয়নাল আবেদিন।

চাঁদপুরের অর্ধশতাধিক গ্রামে কাল ঈদ
সৌদির সঙ্গেই লক্ষ্মীপুরের ১০ গ্রামে কাল ঈদ
সুরেশ্বরী দরবার শরীফে কাল ঈদ

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © banglarprotidin.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbanglaro4451